সোমবার, ২৪ Jun ২০২৪, ০৫:১৫ পূর্বাহ্ন

শেখ হাসিনার অধীনেই নির্বাচন হবে- ওবায়দুল কাদের

শেখ হাসিনার অধীনেই নির্বাচন হবে- ওবায়দুল কাদের

বিশেষ প্রতিবেদক:

শান্তি সমাবেশে আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের বলেছেন, আমাদের এক দফা, শেখ হাসিনা ছাড়া নির্বাচন হবে না ।

গতকাল বুধবার দুপুরে বায়তুল মোকাররম মসজিদের দক্ষিণ গেটে আওয়ামী লীগের শান্তি সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন।

ওবায়দুল কাদের বলেন, শেখ হাসিনার সরকার থাকবে, সংবিধান অনুযায়ী তার সরকারের অধীনে নির্বাচন হবে। আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক বলেন, তাদের এক দফা, আমাদেরও এক দফা- সংবিধান সম্মত নির্বাচন।

নেতাকর্মীদের উদ্দেশে ওবায়দুল কাদের বলেন, খেলা নির্বাচন পর্যন্ত চলবে । আর ছাড় দেওয়া হবে না । যখন ডাক দেব তখন মাঠে চলে আসবেন । কোনো অপশক্তির সঙ্গে আপস করবেন না । যারা মায়ের বুক খালি করেছে, রক্তের হলি খেলা করেছে তাদের সঙ্গে আপস নয় । যাদের হাতে রক্তের দাগ তাদের সঙ্গে আপস নয় । যারা ১৫ই আগস্ট স্বপরিবারে বঙ্গবন্ধু ও জেলখানায় জাতীয় চার নেতাকে হত্যা করেছে তাদের সঙ্গে আপস করতে পারি না।

বিএনপির উদ্দেশে তিনি বলেন, আমরা বিকেল ৪টা আপনাদের কোনো বাধা দেব না। কাউকে আক্রমণ করতে যাব না । তিনি বলেন, ঢাকায় যেসব বিদেশি বন্ধুরা বলেন, সরব এসেছেন তাদের উদ্দেশ্যে বলতে চাই- আপনারা চান অবাধ, সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ নির্বাচন । আমাদেরও লক্ষ্য একই। কিন্তু এ অবাধ সুষ্ঠু নির্বাচনকে যারা বাধা দেবে তাদের প্রতিহত করব।

সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী বলেন, বিএনপির এক দফা হচ্ছে শেখ হাসিনার পদত্যাগ। আমাদের কথা একটা শেখ হাসিনা ছাড়া কোনো নির্বাচন হবে না। নির্বাচনকালীন সরকারের প্রধান হবেন শেখ হাসিনা। বাংলাদেশের মানুষ যে নেত্রীকে পছন্দ করেন, যার উন্নয়নকে পছন্দ করেন, যার পরিশ্রম ও সততাকে পছন্দ করেন তার অধীনে নির্বাচন হবে।

ওবায়দুল কাদের বলেন, বিএনপি জানে নির্বাচন হলে তারা হেরে যাবে। শেখ হাসিনার জনপ্রিয়তায় তারা ভেসে যাবে। সেজন্য তারা শেখ হাসিনাকে হিংসা করে। যারা পদ্মাসেতু, এলিভেটেড এক্সপ্রেসওয়ে, মেট্রোরেল, রূপপুর পারমাণবিক বিদ্যুৎ কেন্দ্র, বঙ্গবন্ধু টানেল চায়নি, দেশের উন্নয়ন পছন্দ করে না পড়ে তারা শেখ হাসিনাকে চায় না। আমরা বলতে চাই স্মার্ট বাংলাদেশের স্বপ্ন দেখিয়েছেন শেখ হাসিনা। আর ২০৪১ সালের মধ্যে বাংলাদেশ উন্নত রাষ্ট্র হবে।

বিএনপির এক দফা বেলুনের মতো ফুটে যাবে বলে মন্তব্য করেছেন আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক এবং তথ্য ও সম্প্রচারমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ।

আওয়ামী লীগের এই যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক বলেন, তারা বার বার এক দফা দেয়। ১৩, ১৪, ১৯ এবং ২২ সালের ডিসেম্বরে এক দফা দিয়েছে। তাদের এক দফা বেলুনের মতো ফুটে যায়। এক দফার আন্দোলন মাঠে মারা গিয়েছিল। এবারো তাদের এক দফা ফুটে যাবে।

গতকাল বুধবার রাজধানীর বায়তুল মোকাররমের দক্ষিণ গেটে আওয়ামী লীগের শান্তি সমাবেশে তিনি এসব কথা বলেন।

সমাবেশের প্রধান অতিথি আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহণ ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের মন্ত্রী বলেন, বিএনপির অবস্থা হয়েছে সাপের মতো। সাপ যেমন বার বার খোলস পাল্টায়, বিএনপিও বার বার খোলস পাল্টায়। বিএনপি পাগলা কুকুরের মতো হয়ে গেছে। তারা ইসরাইলের গোয়েন্দা মেন্দি এন সাফাদির সঙ্গেও বৈঠক করে। কোনো সন্ত্রাসী, নৈরাজ্যকারী ও ইসরাইলের এজেন্টদের আমরা ক্ষমতায় আসতে দেব না ।

ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের সভাপতি আবু আহমেদ মন্নাফীর সভাপতিত্বে সমাবেশে বক্তব্য দেন দলটির সাংগঠনিক সম্পাদক এসএম কামাল হোসেন, সুজিত রায় নন্দী, ঢাকা দক্ষিণ সিটির মেয়র ব্যারিস্টার শেখ ফজলে নূর তাপস, উত্তর সিটির মেয়র আতিকুল ইসলাম, আওয়ামী লীগের প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক আব্দুস সোবহান গোলাপসহ কেন্দ্রীয় নেতারা।

 

এম.এফ/রংপুর টাইমস

Please Share This Post in Your Social Media

© All rights reserved © 2024 Rangpurtimes24.Com
Developed BY Rafi IT